ম্যাজিস্ট্রেটকে ‘ভাই’ বলায় জবি শিক্ষার্থীকে হয়রানি!

অনুপম মল্লিক,জবি
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১২:০০ AM, ১৩ জুন ২০২১

নড়াইলে ম্যাজিস্ট্রেটকে ‘ভাই’ বলে সম্বোধন করায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) এক শিক্ষার্থীকে হয়রানির অভিযোগ উঠেছে সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জাহিদ হাসানের বিরুদ্ধে।

শনিবার (১২ জুন) সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটেছে বলে বলে জানা যায়।

আরো জানা যায়, শনিবার সন্ধ্যার পূর্বে ভুক্তভোগী জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ২০১৭-১৮ সেশনের পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী তওসীবুল আলম প্লাবন তার এক বন্ধুকে সাথে নিয়ে বের হলে নড়াইলের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (নেজারত, ই-সেবা ও ট্রেজারি শাখা) মোঃ জাহিদ হাসান তাদের পরিচয় জানতে চান। প্লাবন ‘ভাই’ বলে সম্বোধন করে নিজেকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী বলে পরিচয় দিলে তাকে থানায় নিয়ে যাওয়ার উদ্দেশ্যে সন্ধ্যা ৬টা ১২ মিনিটে গাড়িতে তুলা হয়। পরবর্তীতে রাত ৯টা ৩৫ মিনিটে মুচলেকা দিয়ে তিনি ছাড়া পান।

ভুক্তভোগী প্লাবনের কাছে এবিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বিডি ক্যাম্পাসকে বলেন, আমি বাসা থেকে বের হয়েছিলাম একটা কাজে আমার এক বন্ধুর সাথে। তখন তিনি এসে বললেন, আপনারা কি করেন। আমি বললাম, ভাই আমি লেখাপড়া করি জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে। তখন সাথে সাথেই গাড়িতে তুললো। উনার সাথে একজন সহকারী ছিল উনি বলতেছেন, ম্যাজিস্ট্রেট সাহেবরে ভাই বলো?

তিনি আরও বলেন, আমি মাস্ক পড়ে থাকার পরও এমন ঘটনার স্বীকার হয়েছি। আমাকে প্রচণ্ড পরিমানে হয়রানি করা হইছে। গাড়িতে তুলা হইছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অস্বীকার করে সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জাহিদ হাসান বিডি ক্যাম্পাসকে বলেন, এরকম কোনো ঘটনা ঘ‌টে‌নি। এটি সম্পূর্ণ অসত্য কথা। আমাদের নড়াইল শহরে লকডাউন দেওয়া হয়েছে। এখানে যদি মাস্ক ছাড়া কাউ‌কে পাওয়া যায়, তাহলে আমরা তাকে ধরেছি। আপনি হয়তো এটা জেনে থাকবেন প্রত্যেকের পকেটে মাস্ক থাকে। মাস্ক ছাড়া মনে হয়না কোনো মানুষকে পাওয়া যাবে। ত‌বে তারা কেউ মাস্ক ব্যবহার করেন না এবং এখানে শুধু একজনকে নয়, এখানে অনেককেই ধরে গাড়িতে তোলা হইছে। সে যা বলেছে সেটা সম্পূর্ণ অসত্য, মিথ্যা বিষয়।

একজন ম্যাজিস্ট্রেট কে ভাই বলা যায় কিনা সে প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, এটা আপনি বলতে পারেন, এটাতে কোনো সমস্যা নেই।

এ বিষয়ে অভিযোগ এসেছে বললে তিনি বিডি ক্যাম্পাসকে বলেন, মানুষ তার নিজের অপরাধ ঢাকার জন্য অনেক কিছুই এখানে উপস্থাপন করবে। এটি তো এখন মনে করেন একটা কমন বিষয় হয়ে গেছে যে আমি কিছু করি নাই। আমার কাছে মাস্ক আছে। সেই ছেলের মুখে মাস্ক ছিল না। এখানে এমন একজনকেও ধরে গাড়িতে তুলা হয়নি যার মুখে মাস্ক ছিল ।

ভাই বলায় ক্ষিপ্ত হয়েছেন বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বিডি ক্যাম্পাসকে বলেন, এটা একটা অসত্য, মিথ্যা,বানোয়াট, উদ্দেশ্য প্রণোদিত একটা বিষয়।

আপনার মতামত লিখুন :