রাজশাহীতে ছাত্রাবাসে শিক্ষার্থীদের মারধর, শহরছাড়া করার হুমকি!

বিডি ক্যাম্পাস ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১১:১২ AM, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১

রাজশাহী নগরীর হেতম খাঁ এলাকার আহসান মঞ্জিল ছাত্রাবাসের মালিক ও তার ছেলের বিরুদ্ধে স্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজ শিক্ষার্থীদের নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। ছাত্রাবাস মালিক কালু ও তার ছেলে ছাত্রদল নেতা রিয়াদ শিক্ষার্থীদেরকে শুধু মেস ছাড়া নয়; লাথি মেরে শহর ছাড়া করার হুমকি দিয়েছেন।
মঙ্গলবার ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীরা পুলিশের কাছে এমন অভিযোগ করেছেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
আহসান মঞ্জিল নামের ছাত্রাবাসের এক শিক্ষার্থী জানান, সম্প্রতি নগরীর হেতম খাঁ এলাকার ছাত্রাবাসে তারা ওঠেন। তবে সেখানে অনেক সমস্যায় পড়তে হয় তাদের। মেসে পানি থাকে না। বিদ্যুতের লাইন কাটা পড়ে বিল পরিশোধ না করায়।
এসব বিষয়ে ছাত্ররা অভিযোগ করলে মেস মালিক মো. কালু ও তার ছেলে রিয়াদ হোসেন মাঝেমধ্যেই তাদেরকে গালিগালাজ ও হুমকি দিতেন। সময়মতো মেস ভাড়া ও বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করা হলেও পানি ও বিদ্যুৎ সমস্যার সমাধানের কথা বললেই মেস মালিক বাপ-বেটা প্রায়ই জোরজবরদস্তি করে থাকেন তাদের সঙ্গে।
শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, সর্বশেষ মঙ্গলবার ভোরে পানির কথা বললেই, মেস মালিক মো. কালু ছাত্রাবাসে এসেই কয়েকজন শিক্ষার্থীর গলা চেপে ধরে এলোপাতাড়ি মারতে শুরু করেন এবং তাদের মানিব্যাগে থাকা টাকাপয়সা ছিনিয়ে নিয়ে যায়। বাধা দিলে একপর্যায়ে গালিগালাজ করে রাজশাহী শহরছাড়া করার হুমকি দিয়ে চলে যান।
কালুর ছেলেও এসে পরে শিক্ষার্থীদের হুমকি দেন। এরপর ছাত্ররা আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে মালোপাড়া পুলিশ ফাঁড়িতে অভিযোগ দেন।
অবশ্য অভিযুক্ত মেস মালিক মো. কালু অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, মেসের শিক্ষার্থীরাই আমার সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেছে। তবে তার ছেলে ছাত্রদল নেতা মো. রিয়াদ বলেন, এটা আমাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়। শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আপস হয়ে গেছে।
মালোপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইফতেখার আলম গণমাধ্যমকে জানান, অভিযোগ পেয়ে ছাত্রাবাসে পুলিশ পাঠানো হয়। পুলিশ গিয়ে বিষয়টি মীমাংসা করে দিয়ে এসেছে। শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার বিষয়টি পুলিশ গুরুত্বের সঙ্গে দেখছে।

 

আপনার মতামত লিখুন :