রাবির বাসগুলোর ফিটনেস নেই,গতিতে পারবেনা -প্রক্টর

উমর ফারুক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১১:২২ AM, ১৩ জুলাই ২০২১

লকডাউন শিথিল করায় সশরীরে পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের নিজস্ব বাসে করে বিভাগীয় শহর পর্যন্ত পৌঁছানোর সিদ্ধান্ত আপতত স্থগিত রেখেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।তবে গণপরিবহন চালু না থাকলে পূর্বের সিদ্ধান্ত বহাল থাকতে পারে এমনটাই জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন দপ্তরের প্রশাসক মকছিদুল হক।
গতকাল রাতে এক জরুরী বিজ্ঞপ্তিতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন থেকে জানায়, বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী ১৫ জুলাই থেকে সকল প্রকারের গণপরিবহন চালুর সরকারি সিদ্ধান্তের প্রেক্ষিতে আগামীকালের পরিকল্পিত পরিবহণ সেবা স্থগিত করা হয়েছে। চলমান লকডাউনের কারণে রাজশাহীতে আটকে পড়া রাবি পরিক্ষার্থীদের নিজ নিজ জেলা/বিভাগে পৌঁছে দেয়ার যে সিদ্ধান্ত বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন নিয়েছিল, সরকারি নতুন ঘোষণার কারণে সে বিষয়ে করণীয় ঠিক করতে আগামীকাল এক সভা অনুষ্ঠিত হবে এবং পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেয়া হবে।

হঠাৎ করে এমন সিদ্ধান্ত ক্ষোভ জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে বাড়ি ফিরতে
বেলা সাড়ে ১০টায় ক্যাম্পাসে প্রশাসন ভবনের সামনে অবস্থান করতে দেখা গেছে।
এসময় তারা বলছে, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন হুট করে এমন সিদ্ধান্ত মানার মত নয়।আমরা নিরাপদ ভাবেই বাড়ি ফিরতে চাই।
এদিকে শিক্ষার্থীদের সাথে এ বিষয়ে কথা বলেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর (ভারপ্রাপ্ত)অধ্যাপক লিয়াকত আলী।
তিনি বলছেন, কঠোর লকডাউনের কথা চিন্তা করে শিক্ষার্থীদের বাড়ি পৌঁছানোর যে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো। তবে এখন যদি গণপরিবহন চালু থাকে সেক্ষেত্রে শিক্ষার্থীরা অনায়েসে বাড়ি ফিরতে পারবে। আর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসগুলোর যথেষ্ট ফিটনেস সমস্যা রয়েছে। অন্যান্য বাসগুলোর সাথে গতিতেও পারবেনা।

এই বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন দফতরের প্রশাসক বলেন, যদি দূরপাল্লার বাস সমূহ চলাচল করে তাহলে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন বাস দেয়ার সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসতে পারে। আর যদি দূরপাল্লার বাস না চলে তাহলে আমরা পরিবহন সেবা অব্যাহত রাখব। তাছাড়া এই বিষয়ে আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত ও নেয়া হবে।
উল্লেখ্য, গত ৩ জুন আবাসিক হলসমূহ বন্ধ রাখার শর্তে সশরীরে স্থগিত হওয়া পরীক্ষা নেয়া সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো রাবি প্রশাসন। স্থগিত হওয়া পরীক্ষা সমূহ গত ২০ জুনের পর থেকেই শুরু হচ্ছে সেই সাথে ২০ জুনের পর ২০১৯ সালের স্থগিত পরীক্ষা সমূহ, আগামী ৪ জুলাই এর পর ২০২০ সালের পরীক্ষা সমূহ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিলো।

 

আপনার মতামত লিখুন :